Categories
জাতীয়

৪৫ লাখ টাকা ছিনতাই করে কক্সবাজার ভ্রমণ, পুলিশ ধরল যেভাবে

এ যেন কোনো সিনেমার দৃশ্য! ঈগলের মতো ছোঁ মে’রে টাকার ব্যাগ ছি’নতা’ই করে দৌড়ে পা’ল্লা’চ্ছিলেন এক যুবক। তার পেছনে আরো কয়েকজন স’হযো’গী। মুহূর্তেই তারা ৪৫ লাখ টাকা হাওয়া। এরপর তাদেরকে গ্রে’ফতার করা হয় কক্সবাজার থেকে।

 

রাজধানীর সদরঘাট এলকায় গত ১৪ সেপ্টেম্বর এক ব্যবসায়ীর টাকা ছি’নতা’ই করে নিয়ে যান তারই পা’র্টনার সুলতান। তবে টাকার ব্যাগ ছিন’তাই’কারীর নাম সালাউদ্দীন আহমেদ তন্ময়। এ ঘটনায় ৭ জনকে গ্রে’ফতার করেছে পুলিশ।

 

তন্ময় নামের ওই যুবককে শনা’ক্ত করা হয় দেড়শোর বেশি সিসিটিভি ক্যামেরা বিশ্লেষণ করে। সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, তন্ময় বারবার ফোনে কথা বলছেন। তাকে অনু’স’রণ করছে আরো কয়েকজন।

 

পুলিশ জানায়, পল্টনের পলওয়েল মার্কেটের ব্যবসায়ী সজিব আহমেদ কেরানীগঞ্জ থেকে টাকা নিয়ে আসছিলেন পল্টনে। পথে সদরঘাটে ঘটে ছি’নতাই’য়ের ঘটনা। ওই ঘটনার মূল মা’স্টারমা’ইন্ড সুলতান। দু’বার ব্য’র্থ হয়ে তৃতীয়বার ছি’নতা’ইয়ে সফল তিনি।

 

টাকার মালিক সজিব আহমেদ বলেন, কালেকশনের টাকা নিয়ে ওরা এপারে আসছিল দোকানের উদ্দেশে। তারপর দুজন প্রফেশনাল পুলিশ স্টাইলে রিকশায় তুলে ফেলে। ওকে নিয়ে বাদামতলীর দিক চলে যায় আর ছি’নতাই’কারীরা ব্যাগ নিয়ে চলে যায়। একটি ফোন কলের সূত্র ধরে মূল হোতা সুলতান এবং পারভেজকে গ্রে’ফতা’র করে পুলিশ। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে ১২ অক্টোবর বাকি পাঁচজনকে গ্রে’ফতার করা হয়।

 

পুলিশ বলছে, সুলতান এই ছি’ন’তা’ইয়ের ১১ লাখ টাকা দিয়ে নিজের ঋণপরিশোধ করেছে, এরমধ্যে ১৮ লাখ টাকা দিয়ে পারভেজ, তুষার মাসুম চলে যায় কক্সবাজার প্রমোদ ভ্রমণে। বাকি টাকা নেয় অন্য সদস্যরা।

 

ডিএমপি লালবাগ বিভাগের উপ কমিশনার বিল্পব বিজয় তালুকদার বলেন, তারা কিন্তু পুরো ছি’নতাই’য়ে কোনো অ’স্ত্র ব্যবহার করেনি। টাকার মালিকের সঙ্গে পরিচয় ছিল। ২ মাস ধরে তাদের ফলো করে করেছে। এর আগেও ছি’নতা’ইয়ের ২ বার চেষ্টা চালিয়েছে। এই টাকার মধ্যে ৫ লাখ টাকা উ’দ্ধার করতে পেরেছে পুলিশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *