Categories
আন্তর্জাতিক

এবার পাকিস্তানে ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল শ্রীরামের মন্দির!

পাকিস্তানে বারবার লু’ন্ঠি’ত হচ্ছে মানবাধিকার। ধর্মাচরণের যে ন্যূনতম অধিকার একটি দেশে থাকা উচিত, একটি সমাজে থাকা উচিত, তা পাকিস্তানে যে একেবারেই নেই সে বিষয়টি বারবার উঠে আসছে সাম্প্রতিক আরও কয়েকটি খবরে।

 

সম্প্রতি খবর পাওয়া গিয়েছে পাকিস্তানে আরও একটি হিন্দু মন্দির ভে’ঙে ফেলা হয়েছে। সেই ঘ’টনার বিরো’ধিতা করেছেন লন্ডনে উপস্থিত পাকিস্তানি মানবাধিকার কর্মীরা। জানিয়েছেন পাকিস্তানের মোট ৪২৮ মন্দিরের মধ্যে মন্দিরের মধ্যে এখন আর মাত্র ২০ টি মন্দির আর পড়ে আছে। পাকিস্তানের শ্রীরাম মন্দিরে যে ধ্বং’সলীলা চালানো হয়েছে তার তী’ব্র বিরো’ধিতা করা হয়েছে।

 

এ ঘ’টনা ঘ’টেছে ১০ ই অক্টোবর। একজন ফেসবুক পোস্টে জানিয়েছেন এখন ৪২৮টি মন্দিরের মধ্যে মাত্র ২০টি মন্দির আর বাকি রয়েছে। সংবাদ সংস্থার খবর অনুসারে কারিয়ো ঘানোয়ার এলাকার হিন্দু মন্দিরে ধ্বং’সলী’লা চালানো হয়। শনিবার পাকিস্তানি সংখ্যালঘুদের কি নি’র্ম’ম অবস্থা সেটি আবারও সাবর সামনে এসেছে।

 

পাকিস্তানে একটা বড় সংখ্যায় হিন্দু মানুষের বসবাস রয়েছে। কিন্তু দী’র্ঘদিন ধ’রেই তাদের ধর্মচর্চার মানবাধিকার ল’ঙ্ঘি’ত হচ্ছে বলে অনেকে অ’ভিযো’গ করে এসেছেন। হিন্দুদের পক্ষ থেকে বারবার প্রতি’বাদ সভা এবং ক্ষো’ভ প্রকাশ করা হয়েছে। পাকিস্তানের সিন্ধু প্রদেশের ক্র’মাগত হিন্দু সংখ্যাল’ঘুদের ওপর অ’ত্যা’চার চালানো হচ্ছে বলে অ’ভিযো’গ। সেখানে একাধিক হিন্দু মহিলা ধ’র্ষণের ঘ’টনা সামনে এসেছে।

 

পাকিস্তানের হিউম্যান রাইটস কমিশন অবশ্য বলেছে এই ঘ’টনা অত্যন্ত দুঃ’খজনক। তাদের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যে আজমান শহরে যেভাবে হিন্দুদের উপর অ’ত্যা’চার চালানো হচ্ছে সেই ব্যাপারে পাকিস্তান মানবাধিকার কমিশন যথেষ্ট চি’ন্তি’ত। সেখানে একাধিক ঘর মন্দির ভে’ঙে ফেলার খবর পাওয়া যাচ্ছে এবং এর পিছনে রাজনৈতিক ই’ন্ধ’ন রয়েছে বলেও তারা জানিয়েছেন।

 

এর আগে একটি ভিডিও সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাই’রাল হয় যেখানে দেখা যায় যে ভাওয়ালপুরে হিন্দু প্রভাবিত বস্তি এলাকায় আ’গুন জ্বা’লিয়ে দেয়া হয়েছে এবং তাদের বাড়িঘর ভে’ঙে দেওয়া হয়েছে। ইমরান খান সরকারের আবাসনমন্ত্রী তারিক চিমার সামনে এ ঘ’টনা ঘ’টেছে বলে জানিয়েছে একাধিক সংবাদ মাধ্যম।

 

সারা পৃথিবীতে হিন্দু মানবাধিকার ল’ঙ্ঘ’নের বিষয়ে পাকিস্তানকে কো’ণঠা’সা করতে হয়েছে এর আগেও একাধিকবার পাকিস্তানের সংখ্যাল’ঘুদের ওপর চ’ড়াও অ’ত্যা’চার নিয়ে বিশ্বের বিভিন্ন রাজনৈতিক মহলে প্রশ্নের মুখে পড়তে হয়েছে পাকিস্তানকে। সূূত্র : নিউজ ১৮

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *