Categories
জাতীয়

যাবার বেলায় যা বলে গেলেন ড. বিজন কুমার শীল

আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন বিজ্ঞানী ড. বিজন কুমার শীল আজ রোববার সকালে সিঙ্গাপুরে চলে গেছেন।সকাল সাড়ে ৭টার দিকে বিজন কুমার শীল সিঙ্গাপুরের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন।

ঢাকা ছাড়ার আগে বিজন কুমার শীল বলেন, এমপ্লয়মেন্ট ভিসার জন্য তিনি সিঙ্গাপুরে ফিরে যাচ্ছেন। ভিসা পেলে তিনি শিগগির বাংলাদেশে ফিরে আসতে পারবেন বলে আশাবাদী।বিজন কুমার শীল গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের অ্যান্টিজেন্ট-অ্যান্টিবডি কিটসহ বড় বড় প্রকল্পে যুক্ত।

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রেস উপদেষ্টা জাহাঙ্গীর আলম বলেন, সকালে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে সিঙ্গাপুরে গেছেন বিজন কুমার শীল। তাঁর পর্যটক ভিসা আছে। কিন্তু এই ভিসায় বাংলাদেশে কাজ করা সম্ভব না। তাই ‘ই-ভিসা’ (এমপ্লয়মেন্ট ভিসা) নিতে তিনি সিঙ্গাপুরে গেছেন বলে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রকে জানিয়েছেন। সেখানে গিয়ে তিনি ই-ভিসার জন্য আবেদন করবেন। এই ভিসা নিয়ে দেড় থেকে দুই মাসের মধ্যে তিনি বাংলাদেশে ফিরে আসতে পারবেন বলে আশাবাদী।

 

বিজন কুমার শীল জন্মসূত্রে বাংলাদেশি হলেও বর্তমানে তিনি সিঙ্গাপুরের নাগরিক। তিনি পর্যটক ভিসা নিয়ে বাংলাদেশে এসেছিলেন। এই ভিসার মেয়াদ গত ১ জুলাই শেষ হয়ে যায়।এরপর বিজন কুমার শীল নিয়ম মেনে জন্মসূত্রে বাংলাদেশি নাগরিক হিসেবে এনভিআর (নো ভিসা রিকোয়ার্ড) ভিসা পরিবর্তনের আবেদন করেন।

 

তবে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রচলিত নিয়ম অনুসারে ড. বিজনকে বিদেশি (অন্য দেশের পাসপোর্টধারী) হিসেবে ‘ই-ভিসা’ (এমপ্লয়মেন্ট ভিসা) করার উপদেশ দেয়। এবং তাঁর পর্যটক ভিসার মেয়াদ এক বছর বাড়িয়ে দেয়। বিজন শীল চলতি বছরের ১ ফেব্রুয়ারি গণ বিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান পদে যোগ দিয়েছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *