Categories
জাতীয়

আদালতে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইলেন ওসি আবুল খায়ের

মেজর (অব.) সিনহা নি’হতের ঘটনায় শিপ্রা দেবনাথের বি’রু’দ্ধে পুলিশের দা’য়ের করা মাম’লায় দুটি জ’ব্দ তালিকা তৈরি; একটির সঙ্গে অপরটির মিল না থাকায় আদা’লতের কাছে ভু’ল স্বী’কার করে নিঃ’শর্ত ক্ষ’মা চেয়েছেন কক্সবাজারের রামু থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল খায়ের।

বৃহস্পতিবার (২৭ আগস্ট) দুপুর ১২টার দিকে কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. দেলোয়ার হোছাইনের আ’দালতে ক্ষ’মা প্রা’র্থনা করেন তিনি। কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের আইনজীবী বাপ্পী শর্মা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

আদালত সূত্র জানায়, মেজর (অব.) সিনহা হ’ত্যার পর তাদের অবস্থান করা নীলিমা রিসোর্ট থেকে ২৯টি সামগ্রী জ’ব্দ করে রামু থানা পুলিশ। এ ঘটনায় দুটি জ’ব্দ তালিকা তৈরি করা হয়। দুটির মধ্যে অমিল থাকায় ব্যাখ্যা জানতে ওসি আবুল খায়েরকে ত’লব করেন আদালত। এর অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার আদালতে উপস্থিত হয়ে নিজের ভু’ল স্বী’কার করেন ওসি। একই সঙ্গে লিখিত শোক’জের জবাবও জমা দেন তিনি।

গত ৩১ জুলাই রাতে টেকনাফের মারিশবুনিয়া পাহাড়ে ভিডিওচিত্র ধারণ করে মেরিন ড্রাইভ দিয়ে কক্সবাজারের হিমছড়ি এলাকার নীলিমা রিসোর্টে ফেরার পথে শামলাপুর ত’ল্লা’শি চৌকিতে গু’লিতে নি’হত হন মেজর (অব.) সিনহা মো. রাশেদ।

এ ঘটনার পর নীলিমা রিসোর্টে এসে পুলিশ দুটি রুমের সব মা’লামা’ল জ’ব্দ করে সিনহার সহযোগী শিপ্রাকে নিয়ে মা’দক আই’নে মা’মলা করে। জা’মিনে মু’ক্তি পেয়ে তার কাছ থেকে জ’ব্দ করা ২৯টি সাম’গ্রীর বিষয় সামনে আনেন শ্রিপা। পরে আদা’লতের নির্দেশে সেসব সাম’গ্রী মাম’লার তদ’ন্ত সংস্থা র‌্যাবের কাছে হ’স্তান্ত’র করে পুলিশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *