Categories
বিনোদন

যত টাকায় কেনা যাবে ফুটবলের জাদুকর মেসিকে

বার্সেলোনা ছাড়তে চান লিওনেল মেসি, কিন্তু ক্লাব কি তাকে ছাড়বে? বার্সা স্পোর্টিং ডিরেক্টর র‍্যামন প্লেইনস বলেছেন, মেসি এখনো তাদের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনার অংশ। দুই পক্ষের জন্য সেরা সমধান খুঁজতে কাজ করছে ম্যানেজমেন্ট। প্রশ্ন এখন, রিলিজ ক্লজের জটিলতা কিভাবে কাটাবেন মেসি? গণমাধ্যমগুলো জানায়, মেসিকে নাকি ছাড়তে রাজি বার্সা, সেজন্য আগ্রহী ক্লাবকে গুনতে হবে ২০০ মিলিয়ন পাউন্ড।

 

মেসি বার্সেলোনা ছাড়বেন, তা কেবল গুঞ্জন মনে হয়েছে। কিন্তু বায়ার্ন ধাক্কার পর সেই গুঞ্জন পরিণত হয় শঙ্কায়। ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে দূরত্ব আর টানা ব্যর্থতায় হতাশা ভর করেছে। সঙ্গে নতুন কোচ কোম্যানের কথায় সন্তুষ্ট হতে পারেননি এলএমটেন।

 

ন্যু ক্যাম্পে ভবিষ্যত দেখছেন না, সেই বার্তা দিয়েছিলেন আগেই। ক্লাবকর্তৃপক্ষকে আনুষ্ঠানিকভাবে সিদ্ধান্তও জানিয়ে দিয়েছেন। মেসির বার্সা ছাড়ার গরম খবর, মিডিয়ার ফ্রন্টপেজে। সমর্থক-বিশ্লেষকদের আলোচনাতেও একই টপিক।

 

রিলিস ক্লজের ৬৩২ মিলিয়ন পাউন্ড নিয়ে যত সমস্যা। চুক্তি অনুযায়ী গেল ১০ জুনের মধ্যে মেসি তার ইচ্ছার কথা জানালে ফ্রি ট্রান্সফারে ক্লাব ছাড়ার সুযোগ পেতেন। কিন্তু করোনার কারণে মৌসুম শেষে দেরি হয়েছে। সময় পেরিয়ে যাওয়ায় এখন উপায় কি? চুক্তি সমাপ্তের অনুরোধ জানিয়েছেন মেসি, বার্সাও নাকি সেটা আমলে নিয়েছে।

 

গণমাধ্যম বলছে দ্বন্দ্ব আদালত পর্যন্ত যেন না গড়ায় সে বিষয়ে সতর্ক দুই পক্ষ। মেসিকে ছাড়তে রাজি বার্সা। ম্যান সিটি, পিএসজি কিংবা ইন্টার মিলানে যেতে পারেন আর্জেন্টাইন বিশ্বসেরা, সেজন্য গুনতে হবে ২০০ মিলিয়ন পাউন্ড।বার্সা-মেসির সম্পর্কে ফাটল ধরেছে, কিন্তু ক্লাবের পক্ষ থেকে প্রথম প্রতিক্রিয়ায় মিলছে ভিন্ন ইঙ্গিত।

 

বার্সার স্পোর্টিং ডিরেক্টর র‍্যামন প্লেইনস বলেন, বার্সেলোনা এবং মেসির জন্য সেরা সমাধান খুঁজে নিতে আমরা কাজ করছি। সে আমাদের পরিকল্পনার অংশ। যা ঘটেছে সেটা অতীত, আমরা নতুন শুরুর অপেক্ষায় আছি। আর সে প্রক্রিয়ায় বিশ্বসেরা খেলোয়াড়কে ঘিরেই হবে পরিকল্পনা।

 

ম্যানচেস্টার সিটি, পিএসজি নাকি ইন্টার মিলান, কোথায় ভিড়বেন মেসি? রেইসে এগিয়ে ম্যান সিটি। গার্দিওলার সঙ্গে জুটি বাধার অপেক্ষা, এরইমধ্যে সাবেক গুরুর সঙ্গে নাকি প্রাথমিক কথা হয়ে গেছে। অন্যদিকে মেসির এজেন্টের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে ম্যান ইউনাইটেড। আর নতুন খবর, চেলসিও নাকি মেসিকে পেতে আগ্রহী।

 

ইংলিশ ক্রীড়া সাংবাদিক সিড লো বলেন, মেসির সাথে বার্সার সম্পর্ক খুব খারাপ হতে পারে, তারপরও ক্লাবের দুরবস্থায় মেসি এভাবে ন্যু ক্যাম্প ছাড়বে তা প্রত্যাশিত নয়। এলএম টেনের পরবর্তী গন্তব্য অনেক কিছুর উপর নির্ভর করছে। ফ্রি ট্রান্সফারে যেতে পারলে তার জন্য পুরো পৃথিবীই মুক্ত।

 

সাবেক ইংলিশ মিডফিল্ডার স্টুয়ার্ট রবসন বলেন, পেপের সাথে ভালো সম্পর্ক থাকার কারণে মেসির সিটিতে যাবার সম্ভাবনা আছে। গার্দিওলা মেসিকে ভালো জানেন। এলএমটেন এর সেরাটা বের করে আনতে সক্ষম তিনি। ম্যান সিটি আর্থিকভাবেও শক্ত। কিন্তু এমন বড় তারকা ফুটবলার থাকলে অন্য ফুটবলার যাদের বেতন বেশি, তাদেরকে বহন করা ক্লাবের জন্য কঠিন হয়ে যায়।

 

বার্সা-মেসি একে অন্যের, সেই বিশ্বাস সমর্থকদের। কিন্তু প্রাণের ক্লাব ছেড়ে চলে যাবেন, এ নিয়ে কোন সন্দেহ নেই। এমনকি প্রেসিডেন্ট বার্তোমেউ সরে গেলেও নাকি সিদ্ধান্ত বদলাবেন না মেসি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *